Page

Follow

পারমার্থিক বিবর্তনতত্ত্ব ও চেতনার ক্রমবিকাশের স্তর অনুসারে বিভিন্ন প্রজাতির জড় দেহ। Page-177

 

 পারমার্থিক বিবর্তনতত্ত্ব ও চেতনার ক্রমবিকাশের স্তর অনুসারে
বিভিন্ন প্রজাতির জড় দেহ। 



রুচি-স্বভার কর্ম অনুসারে পােশাক/বাড়ী সরবরাহ করে প্রকৃতি 


 জলজ প্রাণী, কীট-পতঙ্গ, উদ্ভিদ, পশুপাখী প্রকৃতিতে লক্ষ লক্ষ প্রজাতির জীব-দেহ রয়েছে। আমরা দেখেছি, পৃথিবীর ইতিহাসে এমন একটি মাত্রও বাস্তব দৃষ্টান্ত নথিভুক্ত নেই যে একটি প্রজাতির জীব থেকে সম্পূর্ণ নতুন একটি জীব-প্রজাতির উৎপত্তি হয়েছে।


আমরা জানি যে সব প্রজাতির চেতনার বিকাশের মান এক নয়। যেমন সিংহ হিংস্র। ডলফিন মিশুকে। গরু, নীল তিমি নিরীহ, কিলার হােয়েল বা ঘাতক তিমি হিংস্র। শ্লথেরা অলস, নিদ্রালু। পােকা কম বােঝে, আগুনে ঝাঁপ দেয়। একটি কুকুর অনেক বেশি সচেতন, সংবেদনশীল--- অপরিচিত আগন্তুকের মুড ও মােটিভ মাপতে পারে, খারাপ অভিসন্ধি থাকলে বুঝতে পারে।



প্রত্যেক প্রজাতির জীবদেহই অত্যন্ত জটিল, টেকনােলজিক্যাল ওণ্ডার’ —প্রাযুক্তিক বিস্ময়। একটি আলপিনের মাথার আকৃতির হালকা, হাওয়ায় ভাসতে পারে এমন বীজ থেকে একটি ৩২০ ফুটের আস্ত সিকোইয়া গাছ— যা ৫০০-১০০০ বছর পর্যন্ত বাঁচতে পারে— সেটি একটি তিমির বা একজন মানুষের দেহের চেয়ে কোন অংশে কম বিস্ময়কর নয়।


 যদি একটি মাছির মতাে আকারের ও কুশলতাসম্পন্ন প্লেন তৈরী করতে যান বিজ্ঞানীরা, তাহলে একটি বড় বিমানের থেকে অনেক বেশি বুদ্ধিমত্তা ব্যবহার করতে হবে, ন্যানাে টেকনলজির মতাে অনেক বেশি জটিল প্রযুক্তি ব্যবহার করতে হবে। তবুও তার মান সমান হবে না।।


এতএব, প্রতিটি জীবদেহই জটিল ও নিখুঁত —কোনটি অসম্পূর্ণ নয়। ঠিক যেমন, মােটরসাইকেল, ট্যাক্সি, জিপ, বাস, ট্রেন, প্লেন—বিভিন্ন ধরনের যানবাহনের প্রতিটিতেই রয়েছে বুদ্ধিমত্তার প্রয়ােগ। বিভিন্ন মানুষ তাদের প্রয়ােজন, পছন্দ, সামর্থ্য অনুসারে বিভিন্ন যানবাহন বেছে নেয়।


অধ্যাত্মবিজ্ঞান অনুসারে, চিৎকন জীব-সত্তাসমূহ যখন জড় জগতে অধঃপতিত হয়, তখন তারা ত্রিগুণের সংস্পর্শে আসে। জড়া প্রকৃতির তিনটি গুণ— সত্ত্ব, রজ ও তমর বিভিন্ন মাত্রার মিশ্রণের দ্বারা জীবের চেতনা প্রভাবিত হয়। এইভাবে গুণসঙ্গ-প্রভাবে তারা বিভিন্ন ধরনের শরীর গ্রহণ করতে থাকে 

(কারণং গুণসঙ্গেহস্য সদসদযােনি জন্মসু - ভ,গী ১৩,২২)। বিভিন্ন ধরনের গুণ-স্বভাব-চেতনার অবস্থা প্রকাশের উপযােগী বিভিন্ন প্রজাতির জীব প্রজাতি রয়েছে। প্রথমে জীব সত্তাকে নিম্নতর প্রজাতির শরীর ধারণ করতে হয়। চেতনা যত বিকশিত হতে থাকে, তত সে উন্নতত্তর চেতনার উপযােগী উন্নততর জীব-প্রজাতি দেহে দেহান্তরিত হতে থাকে। এই ভাবে ৮০ লক্ষ প্রজাতির জীব-শরীর গ্রহণ শেষে জীবাত্মা মানব-শরীর লাভ করে। মানব প্রজাতি ৪ লক্ষ।


Click Here >>>Subscribe






Comments

y3

yX Media - Monetize your website traffic with us Monetize your website traffic with yX Media Monetize your website traffic with yX Media

This Blog is protected by DMCA.com

Subscribe

Enter your email address:

Delivered by FeedBurner

Email Subscription

Enter your email address:

Delivered by FeedBurner

sharethis-inline