Page

Follow

জীব-প্রজাতির উদ্ভব সম্বন্ধে ফসিল রেকর্ডে কি মিলেছেঃ||Page-111

 

 জীব-প্রজাতির উদ্ভব সম্বন্ধে ফসিল রেকর্ডে কি মিলেছেঃ





উদ্ভিদ ও প্রাণী।

 "We do not know the phylogenetic history of any group of plants and animals." “কোন শ্রেণীর উদ্ভিদ ও প্রাণীর উদ্ভবের ক্রমােৎপত্তিমূলক ইতিহাস আমরা জানি না।”

—E.Core, জেনারেল বায়ােলজি, (1981) P-299


পতঙ্গদের সম্বন্ধে 


“কীট পতঙ্গদের উদ্ভব সম্বন্ধে ফসিল রের্কড কোন তথ্য প্রদান করে না।”

—এনসাইক্লোপিডিয়া ব্রিটানিকা, Vol,7. P-587।


 “পতঙ্গদের উৎপত্তি রহস্যে আবৃত। প্রায় এটাই মনে হচ্ছে যে পতঙ্গরা হঠাৎই দৃশ্যপটে আবির্ভূত হয়েছে, কিন্তু এটি প্রাণীদের উদ্ভবের প্রচলিত (বিবর্তনমূলক) ধারণার সঙ্গে সঙ্গতিপূর্ণ নয়।”

– ইনসেক্টস্, A.E Huthins. (1988) p-3,4



মাছের উদ্ভব

“আমাদের সংগৃহীত জ্ঞান অনুযায়ী এই নতুন প্রাণীর সঙ্গে পূর্ববর্তী কোন জীবের সম্বন্ধসৃষ্টিকারী জীবাশ্মেরা যােগসূত্র পাওয়া যায় নি। মাছেদের আবির্ভাব হয়েছে কেবল এটুকুই বলতে পারা যায়।”

– মার্ভেস্ অ্যান্ড মিস্ট্রি অফ  আওয়ার অ্যানিম্যাল ওয়ার্ল্ড “মেরুদন্ডী মাছেদের উদ্ভব কোন সাধারণ পূর্বপুরুষ থেকে, তা অজ্ঞাত। বহুবৈশিষ্ট্য সমন্বিত দুটি আদর্শ উপশ্রেণীর মেরুদন্ডী মাছ প্রথম থেকেই যখন আমরা তাদের দেখি —সর্বত্র বিস্তৃত।”

–ভার্টিব্রেট প্যালিয়ােন্টোলজী, A.S Romer, p-53।



সরীসৃপ থেকে পাখীর উদ্ভব সম্বন্ধে 

 আধুনিকতম বিবর্তনবাদীদের ধারণা সরীসৃপ থেকে পাখীদের উদ্ভব ঘটেছে। কেননা পাখীদের হাড়ের ও ডাইনােসাের বা কুমীরের হাড়ের ক্রস-সেকশান করে সেখানে কোষকাঠামােয় নাকি অনেক মিল দেখা গেছে (!!); অতএব তাদের ধারণা ডাইনােসাের জাতীয় প্রাণী থেকেই পাখীর উদ্ভব। সূত্র, ‘ইট’স বার্ড, ইটস্ ডাইনােসাের, দি টেলিগ্রাফ, নােহাড, ৬-১১-২০০০। "No fossil of any such birdlike reptile has yet been found."*

—ওয়ার্ল্ড বুক এনসাইক্লোপিডিয়া, Vol-2, p-291 (1982edition) স্তন্যপায়ীদের স্তন্যপায়ীতে পরিণত হওয়া সম্বন্ধে স্তন্যপায়ী ও সরীসৃপদের মধ্যে (সংযােগরক্ষাকারী) কোনাে যােগসূত্র নেই।”

দি রেপটাইলস


মেরুদন্ডী প্রাণীদের উদ্ভব সম্বন্ধে

“Fossil remains, however, give no information on the origin of the vertebrates অর্থাৎ- জীবাশ্ম-অবশেষ, অবশ্য, মেরুদন্ডীদের উদ্ভব সম্বন্ধে কোন তথ্য দেয় না।”

–এনসাইক্লোপিডিয়া ব্রিটানিকা, Vol-7, p-587,


এপদের ও মানুষদের উদ্ভব সম্বন্ধে

 আধুনিক এপরা, মনে হচ্ছে যেন শূন্য থেকে আবির্ভূত হয়েছে। তাদের কোন গতকাল  নেই, কোন ফসিল রেকর্ড নেই। এবং খাড়া, নগ্ন, যন্ত্র-তৈরীকারী, বড়-মস্তিষ্কযুক্ত জীব আধুনিক মানুষদের প্রকৃত উৎপত্তি – আমরা যদি নিজেদের প্রতি সৎ থাকি, তাহলে অকপটে বলতে হয় একইভাবে এক রহস্যময় ব্যাপার।*

- Dr. Lyall Watson, Anthropologist 

সায়েন্স ডাইজেস্ট, Vol 90, May 1982,P-44 


“এপদের সঙ্গে মানুষের সরাসরি যােগসূত্র স্থাপন করে, এমন কোনাে জীবাশ্মঘটিত বাস্তব  প্রমাণ (Physical evidence) নেই।”

-সায়েন্স ডাইজেস্ট 


“দুর্ভাগ্যবশতঃ, এপদের আবির্ভাবের দিক চিহ্ন খুজে পেতে আমাদের সক্ষম করবে, এমন ফসিল রেকর্ড এখনাে হতাশাজনক ভাবে অনুপস্থিত .....মানুষের নিজস্ব ধারায় বিবর্তনে প্রাথমিক পর্যায়গুলিও এখনাে সম্পূর্ণটাই এক রহস্য হয়ে রয়েছে।”

– দি প্রাইমেক্স, (1985). P-15


শিম্পাঞ্জী থেকে মানুষ। 


“Fossil evidence of human evolutionary history is fragmentary and open to various interpretations. Fossil evidence of chimpanzee evolution is absent alto gether.”

“মানুষের বিবর্তনের জীবাশ্ম-প্রমাণ জোড়াতালিমূলক এবং সেগুলির বিভিন্ন ধরনের ব্যাখ্যা। হতে পারে শিম্পাঞ্জীর (মানুষে) বিবর্তনের জীবাশ্ম প্রমাণ সম্পূর্ণভাবেই অনুপস্থিত।” ।

নেচার Vol-412, 12 July, 2001, p-31 


এরপর পাঠক স্বভাবতঃই প্রশ্ন করবেন, তাহলে আমরা যে পাঠ্য বইয়ে জাভা-ম্যান, নিয়ানডার্থাল ম্যান ইত্যাদি পড়ি তাদের তাে মানুষের আদি পূর্বপুরুষ ও শিম্পাঞ্জীদের উত্তরপুরুষ হিসাবে দেখানাে হয়েছে? 

ঐ টুকরাে হাড়গুলির নেপথ্যে কত রহস্যের আঁধার আর প্রতারণা ছল-চাতুরী রয়েছে। শুনলে অবাক হতে হয়। এ বিষয়ে মাইকেল ক্ৰেমাে, ও থম্পসন একটি বড় গবেষণাপূর্ণ বই লিখেছেন The Forbidden Archaeology-র সংক্ষিপ্ত; দিহিডেন হিস্ট্রি অব হিউম্যান রেস। কিভাবে কোটি কোটি বছর আগেকার আধুনিক মানুষের কঙ্কাল বা করােটির প্রমাণগুলি এড়িয়ে যাওয়া, চেপে দেওয়া হয়েছে, কিভাবে রেডিওকার্বন অ্যানালিসিস নিয়ে হয়েছে বিস্তর কারিকুরি, কিভাবে করােটি নিয়ে করা হয়েছে প্রতারণা সেখানে স-তথ্য দেখানাে হয়েছে। ভগবানের অস্তিত্ত্ব নেই, সব কিছুই আপনা থেকে উদ্ভূত হয়েছে, তা প্রমাণ করার  জন্য অপ্রামাণিক অ্যানথ্রোপলজির সাহায্য নেওয়া হয়েছে, নিচের মিসিং লিংকগুলি তারই

দৃষ্টান্ত :


* নিয়ানডার্থাল ম্যানঃ এই প্রাগৈতিহাসিক মানুষ যখন প্রথম আবিষ্কৃত হয়েছিল, তখন কেবল একটি বাহুর হাড় পাওয়া গিয়েছিল। একটি মাত্র বাহুকে কেন্দ্র করে এক আদিম জনসমাজের কল্পচিত্র অংকিত করা হয়। এরপর বিজ্ঞানীরা কিছু নিয়ানডার্থাল মানুষের অস্তিত্ব খুঁজে পেয়েছেন, কিন্তু ভালভাবে পর্যবেক্ষণের পর দেখা গেছে যে এগুলি এখনকারমত মানুষেরই কঙ্কাল, কেবল তারা অস্থিরােগে সম্ভবতঃ রিকেটে পীড়িত ছিল। "Naeandarthal man may have looked like he did, not beacause he was closely related to the great apes, but because he had rickets, an article in the British Publication, Nature, suggests.”

"Naeandarthal had Rickets, "Science Digest, Feb-1971, P-35 


পিন্টডাউন ম্যান – সায়েন্স ডাইজেস্ট :: জালিয়াতির উৎকৃষ্টতম নিদর্শন গত পঞ্চাশ বছর ধরে মানুষকে বােঝানাে হয়েছে যে পিল্টডাউনে পাওয়া মাথার করােটি মানুষের আদিমতম পূর্বপুরুষ শিম্পাঞ্জী ও মানুষের মধ্যবর্তী লিংক। পরে কিছু বিজ্ঞানীর নিখুঁত পর্যবেক্ষণে ধরা পড়ে সেটি ওরাং ওটাংয়ের চোয়ালের হাড় এবং একটি ছােট শিশুর করােটি জোড়া দিয়ে তৈরী। আবিষ্কারক বিজ্ঞানীরা’ রাতারাতি বিখ্যাত হবার আশায় ও বিবর্তনবাদকে বিজ্ঞানে পরিণত করার চেষ্টার অঙ্গ হিসাবে এই কান্ড করেছিল তারা বিশেষ রঞ্জকও ব্যবহার করে।

 এই জালিয়াতি ধরা পড়ার পর পৃথিবীর পাঠ্যবইগুলিতে পিল্টডাউন ম্যানের সচিত্র বিবরণ পড়ানাে বন্ধ হয়।। 


নেব্রাস্কা ম্যান ঃ নেব্রাস্কায় একটি প্রাচীন দাঁত পাওয়া যায়। অত্যুৎসাহী বিবর্তনবাদীরা ঐ দাঁতকে কেন্দ্র করে সম্পূর্ণ এক জনগােষ্ঠী ও তাদের জীবনযাত্রার ধরণ-ধারনের কল্প-কাহিনী গড়ে তােলেন। বহু বছর বিজ্ঞানীরা নেব্রাস্কা ম্যানকে মিসিং লিংক হিসাবে বর্ণনা করতে থাকেন। তারপর যখন ঐ আবিষ্কারকই ঐ করােটির বাকী অংশ খুঁজে পেলেন, তখন পরিষ্কার হয়ে গেল যে ঐ দাঁতটি ছিল একটি শুয়োর ছানার।


জাভা ম্যানঃ জাভা দ্বীপে এই প্রাগৈতিহাসিকমানুষ  আবিষ্কৃত  হয়। এই জীবকে মানুষ ও এপের মধ্যবর্তী মিসিং লিংক বলে রিপাের্ট করা হয়। গভীর অনুসন্ধানের পর প্রমাণ হল যে জাভা ম্যানের করােটির দুটি টুকরাে দুটি ভিন্ন ভিন্ন করােটির অংশ, যা ঐ দ্বীপের দুটি ভিন্ন  ভিন্ন জায়গায় পাওয়া গিয়েছিল। উভয় অংশই ছিল ওরাং ওটাং জাতীয় প্রজাতির এগুলি মানুষের ছিল না। সম্প্রতি ঐ একই ভূস্তরে মিলেছে আধুনিক মানুষের একাধিক করােটি।





* "Modern apes, for instance, seem to have sprung out of nowhere. They have no yesterday no fossil record. And the true origin of modern humans - ol upright naked, tool-making big  brained beings is, if we are to be honest with ourselves, an equally myterious matter


Click Here >>>Subscribe






Comments

y3

yX Media - Monetize your website traffic with us Monetize your website traffic with yX Media Monetize your website traffic with yX Media

This Blog is protected by DMCA.com

Subscribe

Enter your email address:

Delivered by FeedBurner

Email Subscription

Enter your email address:

Delivered by FeedBurner

sharethis-inline